ই-পেপার ভিডিও ছবি বিজ্ঞাপন কুমিল্লার ইতিহাস ও ঐতিহ্য যোগাযোগ কুমিল্লার কাগজ পরিবার
Count
903
পোলট্রিতে ক্ষতিকর অ্যান্টিবায়োটিকের বিকল্প খুঁজে পেয়েছেন বাকৃবি গবেষক
Published : Tuesday, 7 May, 2019 at 2:05 PM
পোলট্রিতে ক্ষতিকর অ্যান্টিবায়োটিকের বিকল্প খুঁজে পেয়েছেন বাকৃবি গবেষক দেশি জাতের মুরগির উচ্চমূল্য ও উৎপাদন স্বল্পতার কারণে প্রাণিজ আমিষের বড় একটি অংশ পূরণ হচ্ছে ব্রয়লার মুরগি দিয়ে। ব্রয়লার মুরগির মাংস উৎপাদনে ক্ষতিকর অ্যান্টিবায়োটিক বা গ্রোথ প্রোমোটর প্রয়োগের ফলে মাংসে ভারি ধাতু ও ক্ষতিকর উপাদানের উপস্থিতির বিষয়টি সম্প্রতি ব্যাপকভাবে সমালোচিত হচ্ছে। ভারি ধাতু ব্রয়লার মুরগির মাংস থেকে মানবদেহে প্রবেশের আশঙ্কায় তা এড়িয়ে যেতে চাচ্ছেন অনেকেই।

সম্প্রতি বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাকৃবি) গবেষক ড. মোহাম্মদ আল-মামুন ‘প্লানটেইন’ নামক একপ্রকার ঘাসে অ্যান্টিবায়োটিক বা গ্রোথ প্রোমোটরের বিকল্প খুঁজে পেয়েছেন। অ্যান্টিবায়োটিকের বিকল্প হিসেবে প্লানটেইন ঘাস ব্যবহারের মাধ্যমে গবাদি পশু মোটাতাজাকরণ ও অধিক পুষ্টিসমৃদ্ধ মুরগির মাংস উৎপাদন প্রযুক্তির এই নাম তিনি দিয়েছেন ‘বাউ-প্লানটিভ’।

গবেষক আল-মামুন জানান, প্লানটেইন একটি বহুবর্ষজীবী ঘাসজাতীয় ঔষধি উদ্ভিদ। এটি দেশে ব্যবহৃত অ্যান্টিবায়োটিক বা গ্রোথ প্রোমোটরের চেয়ে তুলনামূলক বেশি কাজ করে বলে আমার গবেষণায় প্রমাণিত হয়েছে। এটি দেহের উপকারি অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট হিসেবেও কাজ করে। গবেষণায় দেখা গেছে, প্লানটেইন ঘাস খাওয়ানোর ফলে উৎপাদিত মাংসে অধিক ওমেগা-৩ নামক ফ্যাটি অ্যাসিড পাওয়া যায়। এছাড়াও মাংসে ক্ষতিকর চর্বির পরিমাণ কম, স্বাদ ও লালচে রং তুলনামূলক বেশি এবং মাংসের পচন কম হয়। এছাড়াও প্লানটেইন ঘাস ব্যবহারের খরচ খামারে ব্যবহৃত অ্যান্টিবায়োটিক ও গ্রোথ প্রোমোটর ব্যবহারের খরচের অর্ধেকের কম। প্লানটেইন এখন বাংলাদেশের যেকোনো অ লে চাষাবাদের জন্য উপযোগী।

উল্লেখ্য, ২০১১ সাল থেকে বাংলাদেশে প্লানটেইন ঘাস নিয়ে গবেষণা করে আসছেন তিনি। উদ্ভিদটি বাংলাদেশে পরিবেশের সাথে খাপ খাওয়ানো ও চাষ-উপযোগী করতে প্রায় ৩ বছর সময় লেগেছে তাঁর। এর আগে তিনি ২০০৪ সালে জাপানের এক বিশ্ববিদ্যালয়ে প্লানটেইন ঘাসের উপর প্রথম গবেষণা শুরু করেন। গবেষণায় সাফল্যের জন্য তিনি সেখানে প্রেসিডেন্ট ও ডিন পদকে ভূষিত হন। ২০০৯ সালে জাপানে এবং ২০১৩ সালে চীনে তিনি সেরা তরুণ গবেষক হিসেবে স্বীকৃতি পান। 





© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
কুমিল্লার কাগজ ২০০৪ - ২০১৮
সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আবুল কাশেম হৃদয় (আবুল কাশেম হৃদয়)
নির্বাহী সম্পাদক: হুমায়ূন কবীর জীবন
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ১২২ অধ্যক্ষ আবদুর রউফ ভবন, কুমিল্লা টাউন হল গেইটের বিপরিতে, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ।
ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩
ই মেইল: [email protected], [email protected],  Developed by i2soft
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ আবুল কাশেম হৃদয়
নির্বাহী সম্পাদক: হুমায়ূন কবীর জীবন
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ১২২ অধ্যক্ষ আবদুর রউফ ভবন
কুমিল্লা টাউন হল গেইটের বিপরিতে, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ। বাংলাদেশ। ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩
ইমেইল : [email protected] Developed by i2soft
document.write(unescape("%3Cscript src=%27http://s10.histats.com/js15.js%27 type=%27text/javascript%27%3E%3C/script%3E")); try {Histats.start(1,3445398,4,306,118,60,"00010101"); Histats.track_hits();} catch(err){};