ই-পেপার ভিডিও ছবি বিজ্ঞাপন কুমিল্লার ইতিহাস ও ঐতিহ্য যোগাযোগ কুমিল্লার কাগজ পরিবার
Count
75
ডেঙ্গু প্রতিরোধে সর্বাত্মক ব্যবস্থা নিন
Published : Friday, 12 July, 2019 at 12:00 AM
ডেঙ্গু প্রতিরোধে সর্বাত্মক ব্যবস্থা নিনরাজধানীতে এডিস মশার প্রজনন ও বিস্তার বেড়ে যাওয়ায় দেখা দিচ্ছে ডেঙ্গু। জ্বরে আক্রান্ত অনেকের শরীরেই পাওয়া যাচ্ছে ডেঙ্গুর ভাইরাস। নিয়ন্ত্রণে কার্যকর ব্যবস্থা না থাকায় সংক্রমণ বাড়ছে। ডেঙ্গু আক্রান্তদের জন্য নতুন ভয়ের কারণ হয়ে উঠেছে হৃদযন্ত্র অচল করার মতো মায়োকার্ডিটিস বা সংক্রমণের মাধ্যমে হিপ-ের পেশির প্রদাহে আক্রান্ত হওয়ার ঘটনা। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য পর্যালোচনা করে পত্রিকার প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গত বছর জানুয়ারি থেকে জুন পর্যন্ত দেশে ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ছিল ৪২৮ জন। এর মধ্যে জুনে আক্রান্ত হয়েছিল ২৯৫ জন। মৃত্যু হয়েছিল চারজনের। এ বছর একই সময়ে আক্রান্তের সংখ্যা দুই হাজার ছাড়িয়ে গেছে। এর মধ্যে গত জুন মাসে আক্রান্ত হয়েছে এক হাজার ৭১৩ জন, যা গত বছর জুনে আক্রান্তের চেয়ে প্রায় সাত গুণ বেশি। সরকারি হিসাবে এ বছরের শুরু থেকে গত বৃহস্পতিবার পর্যন্ত ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয় দুই হাজার ৬৬ জন। তাঁদের মধ্যে বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে ৩২৬ জন। বিশেষজ্ঞদের অভিমত, এডিস মশা কার্যকরভাবে নিয়ন্ত্রণ করতে না পারায় এ পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে।
ডেঙ্গু পরিস্থিতি পর্যালোচনা করে পত্রিকায় প্রকাশিত খবরে বলা হয়েছে, গত এক দশকের বেশি সময় ধরে দেশে এই রোগটির প্রকোপ থাকছে প্রায় বছরজুড়ে। অথচ ডেঙ্গু প্রতিরোধের লক্ষ্যে শুধু এডিস মশা নিয়ন্ত্রণের উপায় নিয়েই গলদঘর্ম হচ্ছে দেশের স্বাস্থ্য বিভাগ ও সিটি করপোরেশন। বিশ্বের ডেঙ্গুপ্রবণ ২০টি দেশে ডেঙ্গুর প্রতিষেধক নিয়ে কাজ চলার পাশাপাশি ডেঙ্গুর ভ্যাকসিন বা প্রতিষেধক চালু করা হয়েছে। এ ক্ষেত্রে পিছিয়ে আছে বাংলাদেশ। দেশের ওষুধ খাতে ডেঙ্গুর ভ্যাকসিন নিয়ে ভেতরে ভেতরে আলোচনা চললেও তা চালু করা যাবে কি না সে ব্যাপারে এখনো সিদ্ধান্তেই পৌঁছতে পারছে না সরকারি সংস্থাগুলো। অন্যদিকে বাসাবাড়ির পরিষ্কার পানিতে জন্ম নেওয়া এডিস মশা নিয়ন্ত্রণে কোনো কর্মসূচি নেই ঢাকার দুই সিটি করপোরেশনের। প্রবেশাধিকার না থাকার অজুহাতে বাসাবাড়িতে এডিস মশার লার্ভা ধ্বংস করার কর্মসূচি বাস্তবায়ন করে না সংস্থা দুটি। শুধু এডিস মশা নিয়ন্ত্রণে সচেতনতা বাড়ানোর দিকেই মনোযোগ তাদের। নগরবাসীকে সচেতন করাকেই একমাত্র উপায় হিসেবে দেখছে সিটি করপোরেশন। সে লক্ষ্যে সচেতনতামূলক কর্মসূচি, লিফলেট বিতরণ, গণমাধ্যমে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশসহ নানা ধরনের প্রচার চালানো হচ্ছে। এডিস মশার প্রজনন মৌসুমে এর বাইরে তাদের আর কোনো কর্মসূচি নেই।
এডিস মশা প্রতিরোধের মাধ্যমে ডেঙ্গু প্রতিরোধ করা সম্ভব। এর জন্য প্রয়োজন সচেতনতা। বাসাবাড়িতে অতিরিক্ত পানি জমতে দেওয়া যাবে না। ফুলের টব, পানির চৌবাচ্চা, নিচু জায়গা, গ্যারেজে গাড়ির টায়ার ইত্যাদিতে যেন কোনোভাবেই পানি জমে থাকতে না পারে সেদিকে দৃষ্টি দিতে হবে। সংশ্লিষ্ট সংস্থাগুলোরও দায়িত্ব আছে। মশকনিধন অভিযান চালানোও জরুরি। সচেতনতার পাশাপাশি ডেঙ্গুর প্রতিষেধক নিয়েও ভাবার সময় এসেছে বলে আমরা মনে করি।






© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
কুমিল্লার কাগজ ২০০৪ - ২০১৮
সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আবুল কাশেম হৃদয় (আবুল কাশেম হৃদয়)
নির্বাহী সম্পাদক: হুমায়ূন কবীর জীবন
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ১২২ অধ্যক্ষ আবদুর রউফ ভবন, কুমিল্লা টাউন হল গেইটের বিপরিতে, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ।
ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩
ই মেইল: [email protected], [email protected],  Developed by i2soft
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ আবুল কাশেম হৃদয়
নির্বাহী সম্পাদক: হুমায়ূন কবীর জীবন
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ১২২ অধ্যক্ষ আবদুর রউফ ভবন
কুমিল্লা টাউন হল গেইটের বিপরিতে, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ। বাংলাদেশ। ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩
ইমেইল : [email protected] Developed by i2soft
document.write(unescape("%3Cscript src=%27http://s10.histats.com/js15.js%27 type=%27text/javascript%27%3E%3C/script%3E")); try {Histats.start(1,3445398,4,306,118,60,"00010101"); Histats.track_hits();} catch(err){};