ই-পেপার ভিডিও ছবি বিজ্ঞাপন কুমিল্লার ইতিহাস ও ঐতিহ্য যোগাযোগ কুমিল্লার কাগজ পরিবার
Count
543
সহজেই কৃত্রিমভাবে মোটাতাজা করা গরু চেনার উপায়
Published : Monday, 5 August, 2019 at 5:19 PM
সহজেই কৃত্রিমভাবে মোটাতাজা করা গরু চেনার উপায় আসন্ন ঈদুল আজহাকে সামনে রেখে কয়েকদিন আগে থেকেই রাজধানী ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে পশুর হাট বসা শুরু হয়েছে। প্রতিদিনই ট্রাকে করে হাটে উঠছে বিশাল বিশাল গরু। কিছু অসাধু ব্যবসায়ী রয়েছে যারা বেশি লাভের আশায় কৃত্রিমভাবে এসব কোরবানির গরু মোটাতাজা করে হাটে তুলেছেন। ক্রেতাদের অনেকেই এসব গরু না চিনে চড়া দামে কিনে প্রতারিত হচ্ছেন।

বিভিন্ন ধরনের ওষুধ, ইনজেকশন ও রাসায়নিক দ্রব্য ব্যবহার করে এসব পশুকে মোটাতাজা করা হয়। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, কৃত্রিম উপায়ে মোটাতাজাকরণ গরুর মাংস খেলে মানুষের শরীরে পানি জমে যাওয়া, রোগপ্রতিরোধ ক্ষমতা কমে যাওয়া, মূত্রনালি ও যকৃতের বিভিন্ন রকম সমস্যা দেখা দিতে পারে। তবে কিছু লক্ষণ দেখে সহজেই ইনজেকশন দিয়ে মোটাতাজা করা গরু চেনা যায়।

এবার জেনে নিন ইনজেকশন দেয়া পশু চেনার উপায় :

দ্রুত শ্বাস-প্রশ্বাস: কৃত্রিম উপায়ে মোটাতাজাকরণ গরুর শ্বাস-প্রশ্বাস চলতে থাকে খুব দ্রুত। এসব গরু একটু হাঁটলেই হাঁপিয়ে উঠে। ইনজেকশন দেয়া গরুর রানের মাংস নরম হয়। স্বাভাবিকভাবে যেসব গরু মোটা হয় সেগুলোর রানের মাংস শক্ত হয়।

গায়ে আঙুল দিয়ে চাপ দিন: কৃত্রিম উপায়ে মোটাতাজাকরণ গরুর গায়ে আঙুল দিয়ে চাপ দিলে ওই স্থানের মাংস স্বাভাবিক হতে অনেক সময় লাগে। কিন্তু স্বাভাবিকভাবে মোটা গবাদিপশুর ক্ষেত্রে দ্রুতই মাংস স্বাভাবিক হয়।

মুখের লালা বা ফেনা: যেসব গরুর মুখে কম লালা বা ফেনা থাকে সেই গরু কেনার চেষ্টা করুন। কৃত্রিম প্রক্রিয়ায় মোটা করা গরুর মুখে সবসময় বেশি পরিমাণ লাল বা ফেনা থাকবে।

শান্ত প্রকৃতির: স্টেরয়েড ট্যাবলেট খাওয়ানো বা ইনজেকশন দেয়া গরু হবে খুব শান্ত থাকে। ঠিকমতো চলাফেরা করতে পারবে না। পশুর ঊরুতে মাংসের পরিমাণ বেশি মনে হবে।

শরীরে পানি জমে: অতিরিক্ত হরমোনের কারণে পুরো শরীরে পানি জমে মোটা দেখাবে। আঙুল দিয়ে গরুর শরীরে চাপ দিলে সেখানে দেবে গিয়ে গর্ত হয়ে থাকবে।

সামনে খাবার ধরুন: গরুর মুখের সামনে খাবার ধরলে যদি নিজ থেকে জিব দিয়ে খাবার টেনে নিয়ে খেতে থাকে তবে বোঝা যাবে গরুটি সুস্থ আছে। আর যদি অসুস্থ হয়, তবে সে খাবার খেতে চাবে না।

নাকের ওপরটা ভেজা: সুস্থ গরুর নাকের ওপরটা ভেজা ভেজা থাকে। সুস্থ গরুর পিঠের কুঁজ মোটা ও টান টান হয়।

পা ও মুখ ফোলা: বিশেষ করে গরুর পা ও মুখ ফোলা, শরীর থলথল করবে, অধিকাংশ সময় গরু ঝিমাবে, সহজে নড়াচড়া করবে না- এসব গরু কৃত্রিম উপায়ে মোটাতাজা করা হয়েছে বুঝে নিবেন। অসুস্থতার কারণে সব সময় নিরব থাকে।





© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
কুমিল্লার কাগজ ২০০৪ - ২০১৮
সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আবুল কাশেম হৃদয় (আবুল কাশেম হৃদয়)
নির্বাহী সম্পাদক: হুমায়ূন কবীর জীবন
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ১২২ অধ্যক্ষ আবদুর রউফ ভবন, কুমিল্লা টাউন হল গেইটের বিপরিতে, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ।
ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩
ই মেইল: [email protected], [email protected],  Developed by i2soft
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ আবুল কাশেম হৃদয়
নির্বাহী সম্পাদক: হুমায়ূন কবীর জীবন
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ১২২ অধ্যক্ষ আবদুর রউফ ভবন
কুমিল্লা টাউন হল গেইটের বিপরিতে, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ। বাংলাদেশ। ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩
ইমেইল : [email protected] Developed by i2soft
document.write(unescape("%3Cscript src=%27http://s10.histats.com/js15.js%27 type=%27text/javascript%27%3E%3C/script%3E")); try {Histats.start(1,3445398,4,306,118,60,"00010101"); Histats.track_hits();} catch(err){};