ই-পেপার ভিডিও ছবি বিজ্ঞাপন কুমিল্লার ইতিহাস ও ঐতিহ্য যোগাযোগ কুমিল্লার কাগজ পরিবার
Count
952
একজন সফল প্রশাসক
Published : Tuesday, 18 February, 2020 at 9:48 PM, Update: 18.02.2020 10:05:47 PM
 একজন সফল প্রশাসক জহিরুল ইসলাম জহির ।  । 
তারুণ্যদীপ্ত  ইউএনও কে.এম. ইয়াসির আরাফাত সফলভাবে কাজ করে যাচ্ছেন কুমিল্লার নবগঠিত লালমাইয়ের মাঠ প্রশাসনে। সব সময় ছুটে চলছেন গ্রাম থেকে গ্রামান্তরে। ‘জনসেবার জন্য প্রশাসন’ এ শ্লোগানকে সামনে রেখে ‘উন্নত বাংলাদেশ’ গড়তে অবিরাম গতিতে তার উদ্যম উৎসাহে এগিয়ে চলছে লালমাই উপজেলা প্রশাসন। অনিয়ম-দুর্নীতির আঁধার কেটে আলোর মিছিলে জেগেছে লালমাইয়ের সমাজ-সভ্যতা। জনসাধারণের অধিকার আদায়ে তিনি যেন একজন স্বপ্নরাজ।
কে.এম ইয়াসির আরাফাত চট্টগ্রাম জেলার পটিয়া উপজেলার ছনহরা গ্রামে জন্মগ্রহন করেন। চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে রসায়ন বিষয়ে অনার্সসহ মাষ্টার্স সম্পন্ন করে ৩০তম বিসিএস (প্রশাসন) এর মাধ্যমে সহকারী কমিশনার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট হিসেবে ২০১২ সালে ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার কার্যালয়ে যোগদান করেন। পরবর্তীতে তিনি শরিয়তপুর জেলায় সহকারী কমিশনার, নোয়াখালীর সোনাইমুড়ি ও বেগমগঞ্জ উপজেলায় সহকারী কমিশনার (ভুমি) হিসেবে সফলভাবে দায়িত্ব পালন করেছেন। বিশেষ করে শরিয়তপুরে স্বচ্ছভাবে পদ্মা সেতুর জমি অধিগ্রহন কার্যক্রম সম্পন্ন  এবং নোয়াখালীতে চৌমুহনী খাল দখলমুক্ত করে তিনি ব্যাপক প্রশংসিত হয়েছেন।
২০১৮ সালের ১৪ জানুয়ারী তিনি নবগঠিত লালমাই উপজেলার প্রথম উপজেলা নির্বাহী অফিসার হিসেবে যোগদান করেন। ভারতের দেরাদুন প্রদেশে অবস্থিত মৌসরিহতে লাল বাহাদুর শাস্ত্রি ন্যাশনাল একাডেমি থেকে প্রশাসন সংক্রান্ত উচ্চতর প্রশিক্ষণ শেষে তিনি ১৯ ফেব্রুয়ারী কুমিল্লা সদর দক্ষিণের তৎকালীন উপজেলা নির্বাহী অফিসার রুপালী মন্ডল থেকে দায়িত্বভার গ্রহণ করেন।
উপজেলার বাগমারা দক্ষিণের অশ্বথতলায় ভাড়ায় নেয়া একটি বহুতল ভবনে অস্থায়ী কার্যালয় স্থাপন করে পর্যায়ক্রমে সরকারি সকল দপ্তর কে সক্রিয় করেন। বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মানার্থে তিনি নিজের কার্যালয়ে (লাল রং) একটি চেয়ার সংরক্ষিত করেছেন। নিজ অফিসে স্থাপন করেছেন মুক্তিযুদ্ধ ও বঙ্গবন্ধু কর্ণার। এলাকার বিভিন্ন সামাজিক ও পারিবারিক সমস্যা সমাধান করতে প্রতি বুধবার নিজ কার্যালয়ে আয়োজন করেন গণ শুনানী। ইএনও অফিসসহ উপজেলার সকল দপ্তরকে সার্বক্ষণিক তদারকি ও নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে কোজ সার্কিট ক্যামেরার আওতায় নেয়া হয়েছে।
দায়িত্ব নেয়ার পরপরই তিনি সরকারি সেবাগুলোকে সর্বাত্মক স্বচ্ছতার সাথে সাধারণ জনগণের দৌরগোড়ায় পৌঁছে দিতে বিভিন্ন উদ্যোগ নেন। শিাকে সর্বজনীন, গুণগত ও মানসম্পন্ন করার উদ্দেশ্যে প্রাথমিক শিার ওপর কাজ শুরু করেন। প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শতভাগ শিার্থী উপস্থিতি নিশ্চিতকরণ ও ঝরেপড়া রোধকল্পে বিদ্যালয় পরিদর্শন, অভিভাবক সমাবেশ, বিভিন্ন শ্রেণিপেশার মানুষের সঙ্গে যোগাযোগ, মিড ডে মিল উপকরণ (টিফিন বক্স) বিতরণ, শ্রেণিকক্ষ ও বিদ্যালয় প্রাঙ্গণ পরিষ্কার-পরিছন্ন রাখাসহ বিদ্যালয়কে শিশুদের কাছে আকর্ষণীয় করার ল্েয বিভিন্ন কার্যক্রম গ্রহন করেন। কুমিল্লার জেলা প্রশাসক মোঃ আবুল ফজল মীরের নির্দেশনায় ও ইউএনও’র তত্ত্বাবধানে উপজেলার ৬৭টি  প্রাথমিক বিদ্যালয় এ মুক্তিযুদ্ধ কর্ণার, বঙ্গবন্ধু কর্ণার, সততা স্টোর, মহানুভবতার  দেয়াল প্রতিষ্ঠিত হয়। শিক্ষকদের শতভাগ উপস্থিতি নিশ্চিত করতে তিনি উপজেলার সবকয়টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সরকারিভাবে বায়োমেট্রিক পদ্ধতিতে ডিজিটাল হাজিরা চালু করেন। মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের ৪৮টি স্কুল, কলেজ, মাদ্রাসায় স্কাউট, সততা সংঘ, আইসিটি কাব ও ডিবেটিং কাব স্থাপন করেন এবং শিক্ষকের উপস্থিতি নিশ্চিত করতে ডিজিটাল হাজিরা মেশিন স্থাপন করেন।
বাল্য বিবাহ, নারী নির্যাতন, ইভটিজিং বন্ধসহ ভুমি খেকোদের কবল থেকে নদী-কৃষি জমির মাটি রক্ষায় নিয়মিত মোবাইল কোট পরিচালনা করেন। বাজার মনিটরিং এর মাধ্যমে দ্রব্যমূল্য উবর্ধগতি রোধ, খাদ্যের গুণগত মান উন্নয়নসহ নিরাপদ খাদ্য উৎপাদন ও সরবরাহকরণে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছেন।
 একজন সফল প্রশাসক সরকারের মাদক বিরোধী জিরো টলারেন্স নীতিকে সফল করার লক্ষ্যে মাদকসেবীদের বিরুদ্ধে মোবাইল কোট  পরিচালনাসহ মাদক প্রতিরোধে গণসচেতনামূলক কার্যক্রম পরিচালনা করেন।
দু’বছরে উপজেলার ২শ ৮৪জন দরিদ্র গৃহহীনকে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর অগ্রাধিকারমূলক আশ্রয়ন প্রকল্পের আওতায় গৃহ নির্মাণ করে দেয়া হয়। জাতিসংঘ ঘোষিত এমডিজি অর্জনের লক্ষ্যে সরকার কর্তৃক প্রদত্ত মুক্তিযোদ্ধা ভাতা, বয়স্ক ভাতা, বিধবা ভাতা, প্রতিবন্ধী ভাতা, মাতৃত্বকালীন ভাতা, ভিজিডি ও হত দরিদ্রদের জন্য বরাদ্দকৃত ১০ টার চাউল উপযুক্ত ব্যক্তির কাছে পৌছে দিতে তিনি তীক্ষè নজরদারি করেছেন। চলতি শীত মৌসুমে ৫ শহ¯্রাধিক শীতার্তদের দোরগোড়ায় তিনি সরকারিভাবে কম্বল পৌছে দিয়েছেন। উপজেলার রাস্তাঘাট, ব্রীজ-কালভার্ট, মসজিদ-মন্দির নির্মাণ ও সংস্কারে তিনি গত দু’বছরে সরকারিভাবে অনেকগুলো উন্নয়ন প্রকল্প গ্রহণ করেছেন।
তার ক্রীড়াপ্রেম ও সংস্কৃতিমনা ব্যক্তিত্বের কারণে নবগঠিত উপজেলা হয়েও জেলা প্রশাসক গোল্ড কাপে আঞ্চলিক রানারস আপ এবং স্কুল ভিত্তিক কাবাডি প্রতিযোগীতায় জেলা এবং বিভাগীয় পর্যায়ে অংশ করে লালমাই উপজেলা দল। শুদ্ধ সুরে জাতীয় সংগীত প্রতিযোগীতায় উপজেলার ৪ জন প্রতিযোগী বিভাগীয় পর্যায়ে প্রতিনিধিত্ব করেন।
 সরকারিভাবে ধান ক্রয় কার্যক্রমে স্বচ্ছতা নিশ্চিত করতে তিনি প্রান্তিক কৃষকদের তালিকা তৈরি করে লটারির মাধ্যমে এ উপজেলা থেকে ৮শ মে.টন ধান ক্রয়ের ব্যবস্থা করেছেন। এতে এলাকায় কৃষকরা ধানের ন্যায্য মূল্য পেয়েছে। কৃষি উৎপাদনে লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে প্রান্তিক কৃষকদের মাঝে সরকারিভাবে সার ও বীজ পৌছানোর ব্যবস্থা করেছেন কৃষিবান্ধব উপজেলা নির্বাহী অফিসার।
লালমাই উপজেলার বীরমুক্তিযোদ্ধা আমিনুল হক বলেন, নিজ কার্যালয়ে বীরমুক্তিযোদ্ধাদের জন্য লাল চেয়ার সংরক্ষণ করে দেশের সকল মুক্তিযোদ্ধাকে সম্মানিত করেছেন লালমাই উপজেলা নির্বাহী অফিসার মহোদয়। আমরা তাঁর কাছে কৃতজ্ঞ।
বাকই উত্তর ইউপি চেয়ারম্যান আইউব আলী বলেন, লাকসামে থাকাকালীন আমরা সরকারি অনেক সুবিধা থেকে বঞ্চিত হয়েছিলাম। নবগঠিত লালমাই উপজেলায় অর্ন্তভুক্ত হয়ে গত দু’বছরে উন্নয়নে বাকই উত্তর অনেক এগিয়েছে। এজন্য আমরা লালমাই উপজেলার সুযোগ্য নির্বাহী অফিসার মহোদয়ের নিকট কৃতজ্ঞ।
লালমাই উপজেলা নির্বাহী অফিসার কেএম ইয়াসির আরাফাত বলেন, মাননীয় অর্থমন্ত্রী আ.হ.ম মুস্তফা কামাল এফসিএ লোটাস কামাল এমপি মহোদয়ের স্বপ্নের উপজেলা ‘লালমাই’। তাঁর দিক নির্দেশনায় নবগঠিত এ উপজেলাকে মডেল উপজেলায় রুপান্তর করতে দিন রাত কাজ যাচ্ছি। গত দু’বছরে লালমাই উপজেলা প্রশাসনকে সহযোগিতা করায় উপজেলার সকল বীরমুক্তিযোদ্ধা, জনপ্রতিনিধি, সরকারি কর্মকর্তা ও সাংবাদিকবৃন্দসহ সর্বস্তরের জনগণের প্রতি কৃতজ্ঞতা ও ধন্যবাদ জ্ঞাপন করছি।






সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
কুমিল্লার কাগজ ২০০৪ - ২০১৮
সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আবুল কাশেম হৃদয় (আবুল কাশেম হৃদয়)
নির্বাহী সম্পাদক: হুমায়ূন কবীর জীবন
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ১২২ অধ্যক্ষ আবদুর রউফ ভবন, কুমিল্লা টাউন হল গেইটের বিপরিতে, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ।
ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩
ই মেইল: [email protected], [email protected],  Developed by i2soft
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ আবুল কাশেম হৃদয়
নির্বাহী সম্পাদক: হুমায়ূন কবীর জীবন
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ১২২ অধ্যক্ষ আবদুর রউফ ভবন
কুমিল্লা টাউন হল গেইটের বিপরিতে, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ। বাংলাদেশ। ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩
ইমেইল : [email protected] Developed by i2soft
document.write(unescape("%3Cscript src=%27http://s10.histats.com/js15.js%27 type=%27text/javascript%27%3E%3C/script%3E")); try {Histats.start(1,3445398,4,306,118,60,"00010101"); Histats.track_hits();} catch(err){};