ই-পেপার ভিডিও ছবি বিজ্ঞাপন কুমিল্লার ইতিহাস ও ঐতিহ্য যোগাযোগ কুমিল্লার কাগজ পরিবার
ক্ষতিপূরণ চান সোলার মিনিগ্রিডের উদ্যোক্তারা
Published : Wednesday, 3 March, 2021 at 7:44 PM, Count : 183
ক্ষতিপূরণ চান সোলার মিনিগ্রিডের উদ্যোক্তারা২০ বছরের জন্য দেশের প্রত্যন্ত চরাঞ্চলে সোলার মিনিগ্রিড স্থাপন করে প্রান্তিক পর্যায়ের মানুষের অর্থনৈতিক উন্নয়নে ভূমিকা রাখছেন বেসরকারি খাতের ব্যবসায়ীরা। এসব মিনিগ্রিড স্থাপনের আগে পল্লী বিদ্যুতায়ন বোর্ড (আরইবি) ও বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড (পিডিবি) ওইসব এলাকায় তারা কোনও প্রকল্প নেবে না বলে এনওসি দিয়েছিল। কিন্তু ২/৩ বছর যেতে না যেতেই এই দুটি প্রতিষ্ঠান চরাঞ্চলে বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়া শুরু করেছে। এতে করে লোকসানের মুখে পড়েছেন মিনিগ্রিডের উদ্যোক্তারা। এমতাবস্থায় যৌক্তিক ক্ষতিপূরণ দাবি করেছেন এসব প্রকল্পের উদ্যোক্তারা।

বুধবার (৩ মার্চ) রাজধানীর সেগুনবাগিচায় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির নসরুল হামিদ মিলনায়তনে  সংবাদ সম্মেলনে এই দাবি করেন সোলার মিনিগ্রিড অ্যাসোসিয়েশনের নেতারা। এ সময় লিখিত বক্তব্য দেন অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ডিএম মজিবুর রহমান।

সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন— অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক ও গ্রিনহাউজ এনার্জি লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোস্তাক আহম্মেদ, এসটেক লিমিটেডের টেকনিক্যাল ডিরেক্টর রনদেব দাশগুপ্ত, ওয়েস্টার্ন রিনিউয়েবল এনার্জি লিমিটেডের প্রজেক্ট ম্যানেজার এসএম কাইয়ুম বাপ্পী, পূরবী গ্রিন এনার্জি লিমিটেডের প্রজেক্ট ম্যানেজার মো. মেহেদী হাসান, এসএসজি সোলার লিমিটেডের প্রজেক্ট ম্যানেজার তপন চন্দ্র ঘোষ, ব্লু মেরিন এনার্জি লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মাহবুব পাটওয়ারী, প্যারাসল এনার্জি লিমিটেডের প্রজেক্ট ম্যানেজার রুম্মান ইকবাল রনি ও এনভিস এনার্জি লিমিটেডের প্রজেক্ট ম্যানেজার মো. তাজুল ইসলামসহ অন্যরা।

ডিএম মজিবুর রহমান জানান, বর্তমানে ২৬টি সোলার মিনিগ্রিডের মধ্যে ১৭টিতে আরইবি ও পিডিবি জোর পূর্বক তাদের কার্যক্রম পরিচালনা করছে। এ ব্যাপারে তারা উদ্যোক্তাদের সঙ্গে কোনও প্রকার আলাপ-আলোচনা ছাড়া, পূর্বের প্রদত্ত ছাড়পত্রের কোনোরকম তোয়াক্কা না করে, সোলার মিনিগ্রিড এলাকায় বিদ্যুতায়নের কাজ শুরু করে। এমনকি সোলার মিনিগ্রিডের গ্রাহকের মিটারের পাশেই তাদের মিটার স্থাপন করে বিদ্যুৎ সরবরাহ করছে।

তিনি বলেন, ‘প্রায় ১০ বছর আগে সরকার বিভিন্ন চর ও দ্বীপসংশ্লিষ্ট অফগ্রিড এলাকায় বসবাসরত প্রায় ২ কোটি সুবিধাবঞ্চিত গরিব ও বিধ্বস্ত মানুষের জীবনযাত্রার মানোন্নয়নে সোলার মিনিগ্রিড প্রকল্পের মাধ্যমে বিদ্যুতায়ন করার কার্যক্রম শুরু করে। এরইমধ্যে ২৬টি সোলার মিনিগ্রিড কোম্পানির মাধ্যমে দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলে প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে প্রায় ২০ লাখ লোক বিদ্যুৎ সুবিধার আওতায় এসেছে।’

মজিবুর রহমান বলেন,  ‘বর্তমানে আরইবি ও পিডিবি সেখানে প্রবেশ করায় মিনিগ্রিডের ৯০ শতাংশ গ্রাহক এখন তাদের বিদ্যুৎ ব্যবহার করছেন। যে কারণে সোলার মিনিগ্রিড উদ্যোক্তাদের উৎপাদিত বিদ্যুৎ অপচয় হচ্ছে এবং তারা কোটি কোটি টাকা ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছেন।’


« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
কুমিল্লার কাগজ ২০০৪ - ২০১৮
সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আবুল কাশেম হৃদয় (আবুল কাশেম হৃদয়)
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ১২২ অধ্যক্ষ আবদুর রউফ ভবন, কুমিল্লা টাউন হল গেইটের বিপরিতে, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ।
ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩, +৮৮ ০১৭১১ ৯৯৭৯৬৯, +৮৮ ০১৯৭৯ ১৫২৪৪৩
ই মেইল: [email protected],  Developed by i2soft
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ আবুল কাশেম হৃদয়
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ১২২ অধ্যক্ষ আবদুর রউফ ভবন
কুমিল্লা টাউন হল গেইটের বিপরিতে, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ। বাংলাদেশ। ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩, +৮৮ ০১৭১১ ৯৯৭৯৬৯, +৮৮ ০১৯৭৯ ১৫২৪৪৩
ইমেইল : [email protected] Developed by i2soft